মজাদার কলিজা রান্না আলু যোগে রেসিপি

0

উপকরন

– গরুর কলিজাঃ ৭৫০ গ্রাম (গুর্দাও কিছু ছিল)
– পেঁয়াজ কুচিঃ এক কাপ
– রসুন বাটাঃ ২ টেবিল চামচ
– আদা বাটাঃ দেড় টেবিল চামচ
– টমেটোঃ দুইটা কুচি
– হলুদ গুড়াঃ ১ চা চামচ
– লাল মরিচের গুড়াঃ ১ চা চামচ (ঝাল বুঝে)
– জিরা গুড়াঃ ১ চা চামচ
– গরম মশলাঃ দারুচিনি কয়েক পিস, এলাচি কয়েকটা
– লবনঃ পরিমান মত
– তেলঃ এক কাপের কম
– পানি (পরিমান মত)
– কয়েকটা আলু (ছোট করে কাটা)

প্রনালী

কলিজা প্রিপারেশন  (*)

কেটে ভাল করে ধুয়ে নিন।


সামান্য হলুদ দিয়ে কলিজা সিদ্ব করে (কড়া সিদ্ব নয়) নিন।


পানি ঝরিয়ে নিন, এই হচ্ছে কলিজা রান্নার জন্য প্রিপারেশন। মুল রান্নার জন্য রেডী!

মুল রান্না

প্রথমে হাড়িতে তেল গরম করে সামান্য লবন যোগে পেঁয়াজ কুচি ভাঁজুন, সাথে গরম মশলা দিতে ভুলবেন না। হালকা হলুদ হয়ে গেলে আদা, রসুন দিয়ে আবারো ভাঁজুন। এর পর সামান্য পানি দিয়ে ঝোল বানিয়ে নিন এবং এই ঝোলে মরিচ গুড়া, হলুদ গুড়া এবং জিরা গুড়া দিন। কিছু ক্ষন জ্বাল দিয়ে নিন।


এবার টমেটো কুচি দিন এবং ভাল করে ঝোলে মিশিয়ে নিন।


এবার কলিজা গুলো দিয়ে দিন এবং মিশিয়ে নিন।


এবার এক কাপ বা তার চেয়ে সামান্য বেশি পানি দিয়ে গা গা করে নিন। ঢাকনা দিয়ে মাঝারি আঁচে মিনিট ২০ জ্বাল দিন।


আলু দিন।


আবারো এক কাপ পানি দিয়ে ঢাকনা দিয়ে মিনিট ১৫ জ্বাল দিন (মাঝারি আঁচে)।


এমন দেখাতে সময় নেবে না! এবার ফাইন্যাল লবন দেখুন, লাগলে দিন না লাগলে ওকে বলুন!


ব্যস পরিবেশনের জন্য প্রস্তুত। চালের রুটি কিংবা চিকন গরম ভাতের সাথে পরিবেশন করুন।

* তাজা কলিজা রান্না করা উচিত। ফ্রীজে বেশী দিন কলিজা রেখে দেয়া উচিত নয়। আর শুরুর দিকে কলিজা সামান্য সিদ্ব করে নেয়ার কারন হলে কলিজা থেকে রক্ত বা দুষিত কিছু থাকলে তা বের করে দেয়া।

Share.

Leave A Reply