ফুলকপি ও মুরগীর মাংস (সকালের নাস্তায়) রেসিপি

0

পরিমান ও উপকরন

(পরিমান আপনিও অনুমান করতে পারেন)
– ফুল কপি,
– কিছু মুরগীর গোসত,
– দুই/একটা আলু, ইচ্ছা হলে

– পেঁয়াজ কুঁচি
– আদা বাটা
– রসুন বাটা
– হলুদ গুড়া
– জিরা গুড়া
– কয়েকটা কাঁচা মরিচ, লাল মরিচ গুড়া দেয়া হচ্ছে না বলে সামান্য বেশী দিতে হবে
– কয়েকটা এলাচি

– লবন (বুঝে শুনে, পরিমান মত, দুই ধাপে)
– তেল (হাফ কাপ সব মিলিয়ে বা কম)

– ধনিয়া পাতার কুঁচি, একটু বেশী হলেই ভাল

প্রস্তুত প্রনালী

(ছবি কথা বলে)

ফুলকপি ও আলু সামান্য ভেঁজে তুলে নিন। এবং সেই তেলেই মুল রান্না শুরু করুন।


সামান্য লবন যোগে তেল গরম করে পেঁয়াজ কুঁচি ভাঁজুন, কয়েকটা কাঁচা মরিচ কেটে দিতে পারেন। এলাচিও দিয়ে দিন।


ভাঁজা হয়ে গেলে মুরগীর গোসত দিন, সাথে আদা বাটা ও রসুন বাটা দিন।


আগুন পুরো আঁচে রাখতে পারেন। হলুদ গুড়াও দিয়ে দিন। ভাল করে খুন্তি দিয়ে নাড়িয়ে মিশিয়ে নিন।


জিরা গুড়া দিতে ভুলবেন না।


কিছুক্ষনের মধ্যেই এই অবস্থায় এসে যাবে। এবার আগুন মাধ্যম আঁচে করে নিন।


গোসত সিদ্ধ হতে হবে, তাই হাফ বা এক কাপ পানি দিতে পারেন।


এই অবস্থায় এসে যাবে, চুলার ধার ছেড়ে যাবেন না।


এবার ভেঁজে তুলে রাখা ফুলকপি ও আলু দিয়ে দিন।


আগুন বেশী থাকাই ভাল। বেশী নাড়ানো যাবে না, এতে ফুলকপি ভেঙ্গে যাবে।


ঝোল শুকিয়ে যাক।


ফাইন্যাল লবন দেখুন, লাগলে দিন। আরো কয়েকটা কাঁচা মরিচ দিতে পারেন।


এবার ধনিয়া পাতার কুঁচি দিন এবং মিশিয়ে নিন। ঝোল শুকিয়ে নিন।


ব্যস, হয়ে গেল।


গরম পরোটা বা রুটির সাথে জম্বে বেশ! আশা করি চেষ্টা করে দেখবেন। এটা অবশ্য আমরা যে সকালে ভাঁজি খেয়ে থাকি অনেকটা সেই রকমেই!

Share.

Leave A Reply