মজাদার ফুলকপি বাটার মাসালা রেসিপি।

0

বাটার চিকেন খেয়েছেন? ভারতীয় খুব জনপ্রিয় একটি খাবার এটি। বাংলাদেশে বেশ জনপ্রিয়। বাটার চিকেনের মত একটি খাবার হল ফুলকপি বাটার মসালা। ফুলকপি অনেকেরই পছন্দের সবজি। আর এই সবজিটি অনেকেই অনেকভাবে রান্না করে থাকেন। ফুলকপি দিয়ে এইবার রান্না করে ফেলুন ফুলকপি বাটার মাসালা।

উপকরণ

৩৫০ গ্রাম পেঁয়াজ
১/৪ কাপ কাজুবাদাম
১৫০ গ্রাম কাশ্মেরী মরিচ গুঁড়ো
লবণ
১/২ কাপ মাখন
১৫০০ গ্রাম টমেটো
২ চা চামচ চিনি
৮টি দারুচিনি
৮টি লবঙ্গ
৮টি এলাচ
১টি তেজপাতা
১ টেবিল চামচ আদা রসুনের পেস্ট
১/৮ কাপ কাসরি মেথি
তেল
১ চা চামচ কর্ণ ফ্লাওয়ার
১ চা চামচ ময়দা
২টি ফুলকপি
১/২ চা চামচ গোলমরিচ গুঁড়ো

প্রণালী

১। প্রথমে প্রেসার কুকারে মাখন দিয়ে দিন।

২। একটি সুতির পরিস্কার কাপড়ে দারচিনি, এলাচ, তেজপাতা, লবঙ্গ ভাল করে বেঁধে নিন। এখন এই কাপড়ের পুটলিটি প্রেসার কুকারে দিয়ে দিন।

৩। এবার এতে পেঁয়াজ কুচি, কাজুবাদাম, দিয়ে ৫ মিনিট নাড়ুন।

৪। এবার এতে লবণ, আদা রসুনের পেস্ট দিয়ে ১ মিনিট নাড়ুন।

৫। আদা রসুন নরম হয়ে গেলে এতে কাশ্মেরী লাল মরিচ, কাঁচা মরিচ, টমেটো কুচি দিয়ে ঢাকনা দিয়ে ঢেকে ১৫-২০ মিনিট রান্না করুন। প্রেসার কুকারে ৫-৬টি শিষ দিলে চুলা কমিয়ে দিবেন।

৬। এবার মিশ্রণটি ছেঁকে পানি ফেলে দিয়ে পেস্ট করে নিন।

৭। টমেটোর পেস্টটি ২০ মিনিট রান্না করুন। তারপর এতে লবণ, চিনি, কাসুরী মেথি দিয়ে দিন।

৮। বলক আসলে নামিয়ে ফেলুন। এই গ্রেভিটি আপনি ফ্রিজে রেখে সংরক্ষণ করতে পারেন। পরবর্তীতে যেকোন রান্নায় এটি ব্যবহার করতে পারবেন।

৯। এখন ফুলকপি কিছুটা বড় আকৃতি করে কেটে লবণ পানিতে সিদ্ধ করে নিন।

১০। কর্ণ ফ্লাওয়ার, ময়দা, গোল মরিচ, ধনিয়া গুঁড়ো, লবণ, পানি দিয়ে পেস্ট তৈরি করে নিন।

১১। ফুলকপির টুকরোগুলো এই পেস্টে ডুবিয়ে ভেজে নিন।

১২। বাদামী রং হয়ে গেলে নামিয়ে ফেলুন।

১৩। এখন প্যানে টমেটো, পেঁয়াজের পেস্ট, মাখন, ক্রিম দিয়ে ১-২ মিনিট রান্না করুন।

১৪। ব্যস তৈরি হয়ে গেল মজাদার ফুলকপি বাটার মশলা।

Share.

Leave A Reply