শুধু কেক নয়, কেক ব্যাটার দিয়ে তৈরি করুন আরও ৬টি মজার খাবার!

0

ডিম, ময়দা, মাখন/ঘি, চিনি, সামান্য বেকিং পাউডার, একটু ভ্যানিলা এসেন্স ও দুধ- সবকিছু একসাথে মিলিয়ে নিয়েই তৈরি আপনার কেকের ব্যাটার। চাইতে এতে যোগ করতে পারেন নানান রকমের ফ্লেভার কিংবা চকলেট। কিন্তু এই কেক ব্যাটার দিয়ে কি কেবল কেকই তৈরি করা যায়? আপনি চাইলে এই একই ব্যাটার দিয়ে তৈরি করতে পারবেন ৬টি একেবারেই ভিন্ন ভিন্ন স্বাদের খাবার। বিশ্বাস হচ্ছে না? চলুন, জেনে নিই বিস্তারিত রেসিপি।

প্যানকেক

কেক ব্যাটার দিয়ে চমৎকার প্যানকেক তৈরি করা যায়। প্যানকেক তৈরিতে আমরা ডিম বেশী বিট করি না, কেক ব্যাটারে করি। ফলে এই ব্যাটার দিয়ে প্যানকেক হয় আরও মজার ও ফ্লাপি। প্যানে সামান্য মাখন মাখিয়ে কেক ব্যাটার দিয়ে দিন। চাইলে নিজের পছন্দের যে কোন ফ্লেভার বা টপিং মিশিয়ে দিতে পারেন। ঢাকনা নিয়ে কিছুক্ষণ রান্না করুন। এক পাশ লাল হয়ে গেলে উল্টে দিন। আবারও ঢাকনা দিয়ে দিন। ভালো করে ফুলে উঠলে নামিয়ে নিন।

পিঠা

তেল গরম করুন। চামচে করে কেক ব্যাটার নিয়ে কলার পিঠার মত করে পিঠা ভেজে তুলুন। চাইলে ব্যাটারে নারিকেল কোরানো ও গুড়ের টুকরো মিশিয়ে দিতে পারেন। এত মজার পিঠা হবে যে না খেলে বুঝবেন না।

কেক ডোনাট

ভাজা নন, বেক করে ডোনাট তৈরির জন্য আলাদা প্যান পাওয়া যায়। কেক ব্যাটারের মাঝে ভিন্ন ভিন্ন ফ্লেভার মিশিয়ে ডোনাট প্যানে দিয়ে দিন। বেক করুন ফুলে ওঠা পর্যন্ত। কেকের মতই টুথপিক দিয়ে চেক করে নিন ভেতরে হয়েছি কিনা। তৈরি আপনার স্বাস্থ্যকর ডোনাট।

বিস্কিট

কেক ব্যাটারের মাঝে আরও একটু ময়দা মিশিয়ে ঘন করে নিন, সাথে যোগ করুন বাদাম বা কিসমিসের মত টপিং বা চকলেট। এরপর বেকিং ট্রে-তে বাটার পেপার বিছিয়ে অল্প অল্প করে ব্যাটার দিয়ে দিন। বেক করুন মুচমুচে হওয়া পর্যন্ত। ঠাণ্ডা করে পরিবেশন করুন।

কেক স্যান্ডুইচ

ব্যাটারের সাথে নিজের পছন্দ মত ফ্লেভার ও রঙ মিশিয়ে নিতে পারেন। তারপর অল্প করে ব্যাটার স্যান্ডুইচ মেকারে দিয়ে বেক হতে দিন। ফুলে ফেঁপে চমৎকার স্যান্ডুইচ তৈরি হবে।

ব্যানানা ডিলাইট

কলাকে ছোট ছোট পিস করে কেটে ময়দায় গড়িয়ে নিন। তারপর কেক ব্যাটারে চুবিয়ে গরম তেলে মুচমুচে করে ভেজে নিন। অসাধারণ একটি খাবার তৈরি হবে!

Share.

Leave A Reply